fbpx

মালয়েশিয়ার অস্বাভাবিক কয়েকটি স্ট্রীট ফুড !

স্ট্রীট ফুড মালয়েশিয়ায় অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি ব্যবসা। মালয়েশিয়ার বিভিন্ন শহরে স্ট্রীট ফুডের জন্য বিশেষভাবে নির্ধারিত কমপ্লেক্সও রয়েছে শুধুমাত্র স্থানীয় বাসিন্দা ও টুরিস্টদের চাহিদা মেট‍ানোর জন্য ! এই স্ট্রীট ফুড মার্কেটগুলো তাদের বিচিত্র সব খাবারের মাধ্যমে মালয়েশিয়ার সংস্কৃতিতে প্রদর্শন করে। মালয়েশিয়ায় থাকা প্রধান তিন জাতি মাল‍ায়, চাইনিজ ও ইন্ডিয়ানর তিনরকমের রন্ধনপ্রণালীর ‍কারণে এদের খাবারের বৈচিত্রতা প্রকাশ পায় !

মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরের হকার সেন্টার বা যেকোনো স্ট্রীট ফুড স্টলের পাশ দিয়ে হেঁটে যাবার সময় আপনি তাদের খাবারের বৈচিত্রতা দেখতে পাবেন। যা আপনার কাছে অস্বাভ‍াবিক বলে মনে হবে। সহজ ভাষায় যাকে বলা হয় আনইউজুয়াল ফুড !

Image Source: Teambuffet.com

১. মুরগির পায়ের নুডলস (Chicken Feet Wantan Mee) : কুয়ালালামপুরের একটি লোকাল স্ট্রীট ফুড সেন্টার পুদু মার্কেট (Pudu Market)। এটি চীনাদের দ্বারা পরিচ‍ালিত হয়। এখানে Wantan Mee নামে এক প্রকারের নুডলস পাওয়া যায়, যার সাথে মুরগির পায়ের ছোট ছোট টুকরো দেয়া হয়। আমরা যেমন চিকেন স্যুপ, কর্ন স্যুপ, ভেজিটেবল স্যুপ খাই, ঠিক তেমনিভাবে এরা মুরগির পা সহ বাটিভর্তি স্যুপের মধ্যে নুডলস দিয়ে কাস্টোমারদের নিকট পরিবেশন করে।

Image Source: Teambuffet.com

২. ব্যাঙ পোঁড়া (Frog on a stick): জালান আলোর মালয়েশিয়ার একটি নৈশ বাজার। ট‍ুরিস্টদের অন্যতম প্রধান আকর্ষণ এই জায়গাটি। সন্ধ্যাবেলায় এই স্ট্রীট ফুড মার্কেটে মিলবে কাবাবের শিকে লাগানো টসটসে ব্যাঙ ! এই ব্যাঙগুলো চামড়া ছাড়িয়ে শিকে লাগিয়ে পোঁড়ানো হয়, ঠিক যেভাবে আমাদের দেশের হোটেলগুলো গরুর কাবাব বানায় ! ব্যাঙ বলে একে অবহেলা করার কিছু নেই। জেনে অবাক হবেন, ব্যাঙের পায়ে প্রচুর পরিমাণ পটাশিয়াম, প্রোটিন, ভিটামিন এ এবং ওমেগা-থ্রি ফ্যাটি এসিড থাকে। ব্যাঙগুলো খেতে একইসাথে মুরগি এবং মাছের মত অনুভূত হয়। এক খাব‍ারের ভেতরই দুই রকম স্বাদ !

Image Source: Mad Dog TV Dinners

৩. ষাঁড়ের লিঙ্গের স্যুপ (Bull Penis Soup) : মালয়েশিয়ার পেনাঙ শহরের অত্যন্ত জনপ্রিয় একটি খাবার হচ্ছে পেনিস স্যুপ বা ষাঁড়ের পুরুষাঙ্গের স্যুপ। পানি এবং প্রয়োজনীয় মশলা ভর্তি পাত্রের মধ্যে ষাঁড় বা মহিষের আস্ত লিঙ্গ ডুবিয়ে রেখে এই স্যুপটি তৈরি করা হয়। স্যুপের সাথে লিঙ্গের কিছু অংশ কেটে টুকরো করে দেয়া হয়। তবে আপনি চাইলে আপনাকে পুরো লিঙ্গটিই খেতে দেয়া হবে। সেক্ষেত্রে আপনাকে বাড়তি কিছু পয়সা গুণতে হবে। পেনাঙয়ের ইন্ডিয়ান স্ট্রীট ফুড সেন্টারগুলোয় এই ষাঁড়ের লিঙ্গের স্যুপ বা পেনিস স্যুপ পাওয়া যায়।

মালয়েশিয়ার অদ্ভুত সব খাবার নিয়ে এই সিরিজের সবগুলো লেখাগুলো পেতে ছারপোকা ম্যাগাজিনের সাথেই থাকুন। পরবর্তী পর্ব আসছে…

Leave a Reply

error: কপিরাইট প্রটেক্টেড !