fbpx

তারিক বিন জিয়াদের অসামান্য নেতৃত্বে মুসলমানদের স্পেন বিজয়

স্পেন বিজয় মুসলমানদের গৌরবজ্জল অধ্যায় ! ৭১১ খ্রিস্টাব্দে সেনাপতি তারিক বিন জিয়াদ এর অসামান্য সাহসিকতায় মুসলমানরা স্পেন জয় করেন। কেমন ছিলো মুসলমানদের স্পেন অভিযানে দিনগুলো? কি কি বাধার সম্মুখীন হয়েছিলো মুসলমানরা? কিভাবে সব বাধা অতিক্রম করে জয় করলো স্পেন? এসবের আদ্যপ্রান্ত নিয়ে আজকে আলোচনা করবো…

তারিক বিন জিয়াদ এবং মুসলমানদের স্পেন বিজয়

রাসূল সঃ এর মৃত্যুর পর শত বছরের মধ্যেই উমাইয়াদের নেতৃত্বে নতুন মুসলিম সাম্রাজ্য (উমাইয়া শাসনামল ৬৬১ ― ৭৫০ খ্রিস্টাব্দ) পশ্চিমে আটলান্টিক মহাসাগর থেকে পূর্বে ভারতের সীমান্ত পর্যন্ত বিস্তৃত ছিল। হযরত ওমর রাঃ খেলাফতে আসিন হওয়ার পরেই বিশ্বব্যাপী মুসলিম সাম্রাজ্য প্রতিষ্ঠায় মনোনিবেশ করেন। তার ধারাবাহিকতায় ইসলামের শাসন ছড়িয়ে পড়ে।

শুধু যুদ্ধে জয়ের মাধ্যমে না, বরং মুসলিমদের শাসনব্যবস্থা, ন্যায়বিচার এবং সাম্যের গল্প দ্রুত ছড়িয়ে পড়তে থাকে নিজেদের সীমানা অতিক্রম করে অন্যান্য জায়গাতে। স্পেনেও এই হাওয়া এসে লাগে।

৮ম শতাব্দীর প্রথমদিকে স্পেনের নিয়ন্ত্রণে ছিল এক অত্যাচারী রাজা রডারিক। রোমানদের ত্রিতত্ত্ববাদ নীতিও রডারিক অব্যাহত রাখে এবং নিজের এই বিশ্বাস জনসাধারণের উপরও চাপিয়ে দেয়ার জোর প্রচেষ্টা করে।

যদিও জনসাধারণের বেশিরভাগই ছিল একেশ্বরবাদী। তারা মুসলমান না হলেও এক ইশ্বরে বিশ্বাস করত। মুসলিম ইতিহাসবিদ, বিশেষ করে ইবন খাল্দুন, উত্তর আফ্রিকার একজন অভিজাত বংশীয় ব্যক্তি ‘জুলিয়ান’ এর কাহিনী বর্ণনা করেন।

জুলিয়ান এর কন্যা রডারিক দ্বারা অপহৃত এবং ধর্ষিত হয়। জুলিয়ান উত্তর আফ্রিকার এক মুসলিম নেতার কাছে যান, যার নাম ছিল ‘তারিক বিন জিয়াদ’, এবং রডারিককে অপসারণের ব্যাপারে তাঁর কাছে সাহায্য চান।

এপ্রিল ২৬, ৭১১। তারিক বিন জিয়াদ তার বাহিনী নিয়ে জিব্রাল্টারে পা রাখলেন। এই পুঁচকে বাহিনীর মুখোমুখি হতে রডারিক জড়ো করেছিলেন প্রায় এক লক্ষ সৈন্য। এমন সময় তারিক আদেশ দিলেন পিছনে থাকা নিজেদের জাহাজ পুড়িয়ে দিতে। জিব্রাল্টারের নামকরণ করা হয়েছে তারিক এর নামানুসারেই। ‘জাবাল-আত-তারিক’ অর্থাৎ তারিকের পাহাড় থেকেই উৎপত্তি জিব্রাল্টারের নাম। আর ঠিক এখানেই তারিক বিন জিয়াদ সৈন্যদের উদ্দেশ্যে তার ইতিহাস বিখ্যাত ভাষণ দিলেন।

“হে আমার সৈন্যরা, কোথায় পালাবে তোমরা? তোমাদের পিছনে সাগর, সামনে শত্রু। তোমাদের সামনে রয়েছে অগণিত শত্রু, আর জীবন বাঁচানোর জন্য তোমাদের কাছে রয়েছে শুধু তলোয়ার। এবং মনে রেখো এই অসাধারণ যুদ্ধে আমিই সবার সামনে থাকবো যা তোমরা করতে যাচ্ছ…”

তারিকের ভাষণ শুনে উজ্জীবিত সৈন্যরা ঝাঁপিয়ে পড়লো রডারিকের বিশাল বাহিনীর উপর। রডারিকের বাহিনী তখন দ্বিধাবিভক্ত, নিজেদের সুরক্ষিত শহর ছেড়ে এই প্রান্তরে যুদ্ধ করতে এসে যারপরনাই বিরক্ত সামন্ত রাজারা। তাছাড়া এই বিশাল বাহিনী রডারিকের অনুগতও নয়। এই সুযোগটাই কাজে লাগালো মুসলিমরা। তারিকের ৭ হাজার সৈন্যের সাথে যোগ হওয়া মুসা বিন নুসায়েরের পাঠানো আরো ৫ হাজার সৈন্যের অসাধারণ রণকৌশলে মুহূর্তের মধ্যেই ছত্রভঙ্গ হয়ে গেলো ভিজিগথ বাহিনী। গুয়াদেলেতের যুদ্ধে নিহত হলো রডারিক, হিস্প্যানিয়ায় প্রতিষ্ঠিত হলো মুসলিম শাসন ! তারিক বিন জিয়াদের অসামান্য নেতৃত্বেই সম্ভব হয়েছে মুসলমানদের স্পেন বিজয় !

error: Content is protected !!